ওয়েল্ডিং করার সময় কি কি ত্রুটি দেখা যায়? আলোচনা কর

Photo of author

By Latest206

ওয়েল্ডিং পদ্ধতিতে ত্রুটিসমূহকে প্রধান দুইভাগে ভাগ করা হয়েছে। যথা-

  • ১) বাহ্যিক ত্রুটি। যেমন: বিকৃতি, স্প্যাটার, ফাটল ইত্যাদি।
  • ২) অভ্যন্তরীণ ত্রুটি। যেমন: অসম্পূর্ণ পেনিট্রেশন, স্লাগ, রোহোল ইত্যাদি ।

ওয়েল্ডিং পদ্ধতিতে কি কি ত্রুটি দেখা যায়? আলোচনা কর

বিকৃতি (Distortion) : মূল ধাতু অসমভাবে উত্তপ্ত হলে, ঠান্ডা হওয়ার সময় সংকোচন ও প্রসারণ জনিত কারণে বিকৃতি সৃষ্টি হয়।

স্প্যাটার (Spatter) : ভুল পদ্ধতিতে ওয়েল্ডিং করার কারণে গলিত ধাতু গুলো জোড়ার স্থানের চারদিকে ছিটিয়ে পরে, একে স্প্যাটার বলে।

আন্ডার কাট (Undercut) : অতিরিক্ত উত্তপ্ত ও স্বল্প গতিতে ওয়েল্ডিং করার ফলে মূল ধাতু কেটে যায়, একে আন্ডার কাট বলে ।

অসম্পূর্ণ পেনিট্রেশন (Incomplete Penetration) : জোড়ার গভীরে পর্যাপ্ত পরিমাণে গলিত ধাতু না পৌঁছানোকে অসম্পূর্ণ পেনিট্রেশন বলে ।

মাত্রাতিরিক্ত পেনিট্রেশন (Over Penetration): জোড়ার গভীরে অতিরিক্ত পরিমাণে গলিত ধাতু প্রবেশ করাকে মাত্রাতিরিক্ত পেনিট্রেশন বলে ।

ফাটল (Cracking) : অতিরিক্ত কারেন্ট প্রবাহের জন্য জোড়ার স্থানে ফাটল সৃষ্টি হয় ।

Leave a Comment